হিজামার উপকারিতা কি? | কতদিন পর পর হিজামা করা যায় | হিজামা করতে কত টাকা লাগে

 হিজামা একটি ইসলামিক চিকিৎসা পদ্ধতি। এটি শরীর থেকে রক্ত ​​চোষা বা বের করার প্রক্রিয়া। হিজামা আরবি শব্দ যার আক্ষরিক অর্থ "চুষা"। এটি শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ অপসারণের একটি কার্যকর উপায় এবং বহু শতাব্দী ধরে ব্যবহৃত হয়ে আসছে।

Read More

কতদিন পর পর হিজামা করা যায়

৭ দিন পর পর হিজামা থেরাপি নেওয়া যায়। ়এটা নির্দিষ্ট করে বলা নেই কতদিন পরপর হিজামা থেরাপি নেওয়া যাবে কিন্তু সাধারণ মানুষের জন্য সাত দিন আবার কেউ কেউ এক মাস পরও নিতে হয় তার স্বাস্থ্য অনুযায়ী তাকে হিজমা দেয়া হয়।

হিজামার উপকারিতা কি?

হিজামা হল একটি ইসলামিক অভ্যাস যার অনেক উপকারিতা রয়েছে বলে জানা যায়। এটি শরীরের নির্দিষ্ট পয়েন্ট থেকে রক্ত নিষ্কাশনের প্রক্রিয়া। হিজামা শরীরকে টক্সিন পরিষ্কার করে, রক্ত চলাচলের উন্নতি করে এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। হিজামার সমর্থকরাও বিশ্বাস করেন যে এটি হাঁপানি, ক্যান্সার এবং লিভারের রোগ সহ বিভিন্ন ধরণের চিকিৎসা করতে সাহায্য করতে পারে।
হিজামা করার বিভিন্ন উপায় রয়েছে। কিছু লোক পেশাদার হিজামা থেরাপিস্টের কাছে যেতে পছন্দ করে, অন্যরা কীভাবে এটি নিজে করতে হয় তা শিখে। এছাড়াও অনেক অনলাইন ভিডিও রয়েছে তা তাঁতীকেও শিখে।


হিজামা করতে কত টাকা লাগে

হিজামা থেরাপি নিতে কত টাকা লাগে তা নির্দিষ্ট করে বলা নেই। অনেকে ফ্রিতে করে থাকে কিন্তু হ্যাঁ যদি আপনি বাসায় করেন তাহলে আপনার প্রায় 2 হাজার টাকার মতো খরচ হতে পারে। আর যদি কোন ডাক্তার বা কোন ক্লিনিকে গিয়ে করেন তাহলে আপনার অনেক কম খরচে হয়ে যাবে তার কারণ হচ্ছে হিজামা থেরাপি দেওয়ার জন্য কয়েকটা বোতলের মত জিনিস লাগে সেই জিনিস গুলো নিজেকে কিনতে হবে। আর যদি আপনি কোন ক্লিনিক অথবা যারা এগুলো দেয় তাদের কাছে যান তাহলে তারা একই জিনিস দিয়ে দশ-বারোজন 50 জন ইচ্ছে করলে অনেক জনকেই দিতে পারবে। সেজন্য অনেক কম খরচ হয় আর যদি আপনি ভাষায় করেন তাহলে আপনাকে সবকিছু নিজের কিনে নিতে হবে সে ক্ষেত্রে প্রথমবারের মতো আপনার খরচটা একটু বেশি পড়বে। 

হিজামা সংক্রান্ত হাদিস

নবী (সাল্লাল্লাহু 'আলাইহি ওয়া সাল্লাম) তাঁর মাথার মাঝখানে এবং দু’কাঁধের মাঝ বরাবর রক্তমোক্ষণ করাতেন এবং বলতেন: যে ব্যক্তি নিজ দেহের এ অংশ থেকে রক্তমোক্ষণ করাবে, সে তার কোন রোগের চিকিৎসা না করালেও তার কোন ক্ষতি হবে না।

হিজামার বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা

হিজলা থেরাপির ব্যাখ্যা অনেকে অনেক ভাবে দিয়ে থাকেন। অনেকেই বলেন এটি বিষাক্ত রক্তকে বের করে আনে অনেকে বলে যে এটি করলে পেন দূর হয়ে যায় মূলত এর বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা রয়েছে এর হাদীস রয়েছে সেগুলো সম্পর্কে জানতে এবং বুঝতে নিচের ভিডিওটি ভালোভাবে দেখে নিন এতে করে আপনার পূর্ণাঙ্গ ধারণা হয়ে যাবে।



Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url